এবার গভীর সংকটে অভিনেত্রী-সাংসদ মিমি চক্রবর্তী | Filmy Network

হরের বুকে রমরমিয়ে চলছিল জাল কোভিদ ভ্যাকসিন কর্মসূচি। কসবার এমনই এক শিবিরে কোভিদ টিকা নেন অভিনেত্রী-সাংসদ মিমি চক্রবর্তী। এরপরই ঐ টিকা কেন্দ্রের প্রতারণার ঘটনা সামনে আসে। কলকাতা পুরসভার ফরেন্সিক বিশেষজ্ঞরা ঐ টিকা পরীক্ষা করে এবং পরীক্ষার পর দাবি করেছেন যে, মিমি চক্রবর্তীকে সম্ভবত হাম, বিসিজি-র টিকা অথবা পাউডার গোলা জল দেওয়া হয়েছিল। 

ঘটনাটি সামনে আসার পর স্বাস্থ্য নিয়ে স্পষ্টতই চিন্তায় পরে গেছেন অভিনেত্রী-সাংসদ মিমি চক্রবর্তী। পাশাপাশি কলকাতা শহরে এমন ভয়ঙ্কর ঘটনা ঘটতে পারে তা এখনো বিশ্বাস করে উঠতে পারছেন না মিমি। প্রসঙ্গক্রমে তিনি এক সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন, ‘‘পুরসভার ফরেন্সিক বিশেষজ্ঞদের মুখে খবরটা পাওয়ার পরেই আমি চিন্তায় পড়ে যাই। চিকিৎসককে ফোন করি। তিনি বলেন, এটা এক ধরনের অ্যান্টিবায়োটিক, যেটা জলে গুলে দেওয়া হয়েছে। পেট এবং মূত্র সংক্রমণে এই ওষুধ দেওয়া হয়। এটা খুবই কড়া ওষুধ। জলে মিশিয়ে দেওয়া হয়েছে বলে সম্ভবত সে রকম ক্ষতি করবে না বলে জানালেন চিকিৎসক।’’ 

কলকাতা পুলিশ ঘটনার তদন্ত চালাচ্ছে। স্বস্তির খবর এটাই যে, আপাতত সুস্থ আছেন তৃণমূল কংগ্রেসের তারকা সাংসদ অভিনেত্রী মিমি চক্রবর্তী

Leave a Comment